এমপি লিটন হত্যা; কাদেরের স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি

গাইবান্ধা-১ (সুন্দরগঞ্জ) আসনের সরকারদলীয় সংসদ সদস্য (এমপি) মঞ্জুরুল ইসলাম লিটন হত্যা মামলায় সাবেক এমপি ডা. কর্নেল (অব.) আবদুল কাদের খান আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন।

শনিবার বেলা সোয়া ২টার দিকে গাইবান্ধার জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে তাকে হাজির করা হয়।

কাদের খাঁন ১০ দিনের রিমান্ড চলাকালে চতুর্থ দিনে এমপি লিটন হত্যার সঙ্গে তার জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে জবানবন্দি দিতে সম্মত হলে তাকে আদালতে নিয়ে আসা হয়। বিচারক মো. জয়নুল আবেদিন তার জবানবন্দি রেকর্ড করেন।

গত ২২ ফেব্রুয়ারি জিজ্ঞাসাবাদের জন্য কাদের খানকে ১০ দিনের রিমান্ডে নেয়া হয়। রিমান্ডের চতুর্থ দিন শনিবার জবানবন্দি গ্রহণের জন্য হেলমেট এবং বুলেট প্রুফ জ্যাকেট পরিয়ে কাদের খানকে পুলিশ সুপার কার্যালয় থেকে আদালতে হাজির করা হয়।

এ সময় আদালত চত্বর এবং পুলিশ সুপার কার্যালয়ে কড়া নিরাপত্তা বেষ্টনী গড়ে তোলা হয়। জজ কোর্ট ভবনের সবক’টি ফটক বন্ধ করে দেয়া হয়।

আদালতে কোনো সাংবাদিককে ঢুকতে দেয়া হয়নি। এমনকি পুলিশ সুপার অফিসেও কাউকে যেতে দেয়া হয়নি। ফলে জবানবন্দিতে কাদের খান কী বলেছেন তা জানা সম্ভব হয়নি।

গত ৩১ ডিসেম্বর সন্ধ্যায় সুন্দরগঞ্জের বামানডাঙ্গায় নিজ বাসভবনে গুলিবিদ্ধ হন এমপি লিটন। পরে রাত সাড়ে ৭টার দিকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান।

এ হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় টানা ৬ দিন কার্যত গৃহবন্দি করে রাখার পর গত ২১ ফেব্রুয়ারি বগুড়ার শহরের বাসা থেকে সাবেক এমপি আবদুল কাদের খানকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

About The Author

Related posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *